অতিরিক্ত মদপানে যুক্তরাষ্ট্রে বছরে ৯৩ হাজার মানুষের মৃত্যু

যুক্তরাষ্ট্র

যুক্তরাষ্ট্রে ২০২০ সালে মাত্রাতিরিক্ত মদপানে ৯৩ হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এএফপির খবরে বলা হয়েছে, এর আগে এক বছরে মাদকের কারণে যুক্তরাষ্ট্রে এত মৃত্যু ঘটেনি।

সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্র্রোলের (সিডিসি) প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৯ সালের তুলনায় মৃত্যুর এই সংখ্যা ২১ হাজার বেশি। ২০১৯ সালে যুক্তরাষ্ট্রে অতিরিক্ত মদপানে মৃত্যুর সংখ্যা ছিল ৭২ হাজার ১৫১ জন।

সিডিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, মাত্রাতিরিক্ত মাদক গ্রহণের কারণে ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত ৯৩ হাজার ৩৩১ জন মারা গেছে। ১৯৯৯ সাল থেকে দেশটিতে মাদকের ভয়াবহতা শুরুর পর ৯ লাখের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

বিশেষজ্ঞরা মাদকের ব্যবহার বৃদ্ধির পেছনে করোনাভাইরাসকেই দায়ী করছেন। তারা বলছেন, মহামারির কারণে সৃষ্ট হতাশা থেকে যুক্তরাষ্ট্রে মাদক গ্রহণের প্রবণতা বেড়েছে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, গত বছরে শুধু ফেন্টানিলের (অপিওয়েড) মাত্রাধিক্যের কারণে মৃত্যু হয়েছে ৬৯ হাজার ৭১০ জনের। এছাড়া মৃত্যু বড়ার পেছনে মেটাফিটামিন ও কোকেইন ব্যবহারেরও দায় আছে।

ফেন্টানিল শ্রেণির ওষুধ সাধারণত ব্যথার উপশমে ব্যবহার করা হয়। তবে মাদক হিসেবেও ব্যাপক আকারে বিস্তার লাভ করেছে যুক্তরাষ্ট্রে। এর আগের বছরে ফেন্টানিলের মাত্রাধিক্যে মৃত্যু হয় ৫০ হাজার ৯৬৩ জনের। আর ১৯৯৯ সাল থেকে চিকিৎসকের পরামর্শে এবং এর বাইরে অবৈধভাবে মাত্রাধিক ফেন্টানিল গ্রহণ করে মৃত্যু হয়েছে পাঁচ লাখের বেশি মানুষের।

এএফপি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *